1. multicare.net@gmail.com : আমাদের পিরোজপুর ২৪ :
মঙ্গলবার, ২৮ মে ২০২৪, ০৪:১৭ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
সোমবার দুর্গত এলাকার সব শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ প্রবল ঘূর্ণিঝড় রেমাল বাংলাদেশের উপকূল অতিক্রম করতে শুরু করেছে মুন্সীগঞ্জের কৃতি সন্তান নৌ পুলিশের ডিআইজি ইরান পেলেন উন্নয়নে বাংলা অ্যাওয়ার্ড মুন্সীগঞ্জ শ্রীনগরে এক রাতেই ৯টি কবরের কঙ্কাল চুরির অভিযোগ পানি সমস্যা সমাধানে বিত্তহীনদের পাশে সমাজসেবী তাপস পিরোজপুরে ঘূর্ণিঝড় রেমালের প্রভাবে নিম্নাঞ্চল ও চরাঞ্চল প্লাবিত, ৫৬১টি আশ্রয়কেন্দ্র প্রস্তুত রোববার রাতে আঘাত হানতে পারে ঘূর্ণিঝড় রেমাল ঘূর্ণিঝড় রেমালের ক্ষয়ক্ষতি এড়াতে পায়রা ও মোংলা সমুদ্রবন্দরে ১০ নম্বর মহাবিপদ সংকেত ফুলপুরে ভিজিএফ কর্মসূচি কার্ড বিতরণ উদ্বোধন প্রাইম ব্যাংক জাতীয় স্কুল ক্রিকেট টুর্নামেন্টের ফাইনালে কাউখালীর সরকারি বালক উচ্চ বিদ্যালয়

পিরোজপুরে অটোরিক্সা চালককে হত্যা করে অটোরিক্সা ছিনতাই

  • প্রকাশিত: মঙ্গলবার, ১০ অক্টোবর, ২০২৩
  • ৭৮ বার পড়া হয়েছে

পিরোজপুর সদর উপজেলায় ফেরদৌস শেখ অনিক (১৫) নামের এক অটোরিক্সা চালককে হত্যা করে অটোরিক্সা ছিনতাইয়ে অভিযোগ পাওয়া গেছে।মঙ্গলবার (১০ অক্টোবর) দুপুরে পিরোজপুর সদর উপজেলার কদমতলা ইউনিয়নের ঝনঝনিয়া এলাকার একটি ডোবা থেকে অটোরিক্সা চালক ফেরদৌস শেখ অনিকের লাশ উদ্ধার করে পুলিশ।নিহত অটোরিক্সা চালক ফেরদৌস শেখ অনিক জেলার কাউখালী উপজেলার মেঘপাল এলাকার মন্টু শেখের ছেলে।নিহত অনিকের মামা মামুন শেখ জানান, অনিক তার মামার বাড়ী পিরোজপুর সদর উপজেলার রানীপুর এলাকায় থেকে অটোরিক্সা চালাতো। সোমবার (৯ অক্টোবর) সকালে অনিক ভাড়ায় চালিত একটি অটোরিক্সা নিয়ে বাড়ি থেকে বের হয়।পরে রাতে সে আর বাড়িতে ফিরে আসেনি।এরপর আত্মীয়-স্বজনদের বাড়িতে ও হাসপাতালে খোঁজ নিয়ে অনিকের কোন সন্ধান পাননি।পরে ঝনঝনিয়া এলাকায় একটি লাশ পাওয়া গেছে এ খবর পেয়ে তিনি ঘটনাস্থলে এসে অনিকের লাশ সনাক্ত করে।ধারণা করা হচ্ছে অটোরিক্সাটি ছিনতাই করার জন্যই অনিককে হত্যা করে রাস্তার পাশে ডোবায় ফেলে রেখে হত্যাকারীরা অটোরিক্সাটি নিয়ে পালিয়ে যায়।পিরোজপুর সদর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আবীর মো. হোসেন জানান, লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য মর্গে পাঠানো হয়েছে।ঘটনাস্থল পুলিশ সুপার পরিদর্শন করেছেন।এ ঘটনায় জড়িতদের আটকের চেষ্টা করছে পুলিশ।

সংবাদটি শেয়ার করুন

আরো সংবাদ পড়ুন
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
প্রযুক্তি সহায়তায়: 𝐘𝐄𝐋𝐋𝐎𝐖 𝐇𝐎𝐒𝐓